আজ ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৬ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

বিয়ের প্রলোভনে শারীরিক সম্পর্ক, বিধবা নারী অন্তঃসত্ত্বা!

মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম, গাজীপুরঃ

গাজীপুরের কাপাসিয়ায় বিয়ের প্রলোভনে শারীরিক সম্পর্ক করে বিধবা নারী অন্তঃসত্ত্বা হয়েছে। এ ঘটনায় এলাকায় বেশ চাঞ্চল্যকর সৃষ্টি হয়েছে। প্রভাবশালীরা টাকার বিনিময়ে রফাদফার চেষ্টা চালাচ্ছে বলে ভুক্তভোগীর অভিযোগ।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার টোক ইউনিয়নের টোক নগর গ্রামের বোরহানউদ্দিনের মৃত্যুর পর বিলকিস বেগম বিধবা হয়। কিছু দিন পর ছোট ভাই এর বিধবা স্ত্রীকে বিয়ের প্রলোভনে বড় ভাই হাফিজউদ্দিন দীর্ঘদিন ধরে শারীরিক সম্পর্ক করে আসছে। এক পর্যায়ের ছোটভাইয়ের বিধবা বউ ৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন।

ভুক্তভোগী বিয়ের জন্য বারবার চাপ দিলেও তার কথায় কর্ণপাত করেনি ভাসুর হাফিজউদ্দিন। অভিযুক্ত হাফিজউদ্দিন উপজেলার টোক ইউনিয়নের টোক নগড় পূর্বপাড়া মৃত আব্দুল মান্নানের ছেলে।

এ ব্যাপারে ভুক্তভোগী বিলকিস বেগম বলেন, আমার স্বামীর মৃত্যুর পর থেকেই বিয়া করবে বলে আমার সাথে শারীরিক সম্পর্ক করে ভাসুর হাফিজউদ্দিন। এখন আমি পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা, আমার গর্ভে তার সন্তান।
তার বউ বিদেশ থাকায় আমাকে বিয়ে করে সুখের সংসার করবে বলে জানিয়ে ছিলেন। এখন সে আমাকে বিয়ে না করলে গাড়ির নিচে অথবা নদীতে লাফ দিয়ে মরন ছাড়া আমার কোন রাস্তা নেই।

স্থানীয় ইউপি সদস্য কবির হোসেন ঘটনাটির সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ভাসুর হাফিজউদ্দিনের কারণে ভুক্তভোগী মহিলাটি এখন প্রায় পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা। তার গর্ভের সন্তানটি ভালো আছে এবং মেয়ে সন্তান হবে বলে জানান তিনি।

কাপাসিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এএফএম নাসিম বলেন, ঘটনাটি আমার জানা নেই। তবে এ বিষয়ে কেউ অভিযোগ করলে তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


Deprecated: Theme without comments.php is deprecated since version 3.0.0 with no alternative available. Please include a comments.php template in your theme. in /home/somoyerb/public_html/wp-includes/functions.php on line 5059

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরো সংবাদ