আজ ১৫ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩০শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

গাজীপুরে নুহাশপল্লীতে হুমায়ূন আহমেদের মৃত্যু বার্ষিকী পালিত

মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম, গাজীপুরঃ

কথাসাহিত্যিক, নাট্যকার ও চলচ্চিত্রকার হুমায়ূন আহমেদে এর দশম মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে গাজীপুর সদর উপজেলা পিরুজআলী গ্রামের নুহাশপল্লীতে কোরআনখানি, দোয়া মাহফিলসহ নানা কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। জননন্দিত এই কথা কথাসাহিত্যিকের ভক্তদের পদচারণায় মুখর হয়ে উঠে লেখকের প্রিয় এই নিভৃতপল্লী। শত শত ভক্ত নুহাশপল্লীতে ভিড় জমাতে শুরু করেন।

মঙ্গলবার (১৯ জুলাই) সকালে মেহের আফরোজ শাওন তার দুই পুত্র সন্তান নিয়ে হুমায়ুন আহমেদের কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। এসময় গাজীপুর সদর উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট রিনা পারভীন, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট আবুবক্কর সিদ্দিকসহ অসংখ্য হুমায়ূন ভক্ত, হিমু ও রুপার চরিত্র সেজে প্রিয় লেখকের কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

হিমু পরিবহনে চড়ে আসেন হলুদ পাঞ্জাবী পড়া হিমুরা এবং বিভিন্ন সাজে রুপাদের পদচারণায় প্রাণ ফিরে পায় নুহাশ পল্লী। তারাও এসেছেন প্রিয় লেখককে স্মরণ করতে।

দুই সন্তান নিষাদ হুমায়ূন ও নিনিত হুমায়ূনকে নিয়ে কবরে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে মেহের আফরোজ শাওন বলেন, নুহাশপল্লীতে হুমায়ূন স্মৃতি যাদুঘরের কার্যক্রম শুরু করা হবে। হুমায়ুন আহমেদের হাতে আঁকা ছবি, তার হাতে লেখা স্ক্রিপ্টসহ নানা জিনিসপত্র ঠাঁই পাবে এই জাদুঘরে।

জনপ্রিয় এই লেখকের মৃত্যুবার্ষিকীতে সকাল থেকেই তাঁর ভক্তরা নুহাশ পল্লীতে ভিড় জমাতে থাকেন। হলুদ পাঞ্জাবী পড়া হিমু পরিবারের সদস্যরাও আসছেন। দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে বৃষ্টি উপেক্ষা করে প্রিয় লেখককে স্মরন করতে এসেছে অনেক ভক্ত। বৃষ্টি কোন বাধা নয়, কারণ প্রিয় লেখকের সবচেয়ে পছন্দ ছিলো বৃষ্টি। তারা জানালেন, হুমায়ুনের পাঠক প্রিয়তা গত বছর গুলোতে কমেনি বরং বেড়েছে।

ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে ২০১২ সালের ১৯শে জুলাই যুক্তরাষ্ট্রের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদ। পরে ২৪শে জুলাই গাজীপুরের পিরুজালী গ্রামে হুমায়ূন আহমেদের ভালবাসার ছোঁয়ায় গড়া বিস্তৃর্ণ সবুজে ঘেরা নুহাশপল্লীর লিচুগাছ তলায় দাফন করা হয় তাকে।
হুমায়ুন ছিলেন, আছেন এবং থাকবেন তার লেখনির মাধ্যমে। তার সৃষ্টিশীল কর্মের মাধ্যমে এদেশের সকল ভক্ত ও অনুরাগীদের হৃদয়ে তিনি চিরকাল বেঁচে থাকবেন এমনটাই প্রত্যাশা সকলের।


Deprecated: Theme without comments.php is deprecated since version 3.0.0 with no alternative available. Please include a comments.php template in your theme. in /home/somoyerb/public_html/wp-includes/functions.php on line 5059

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরো সংবাদ