আজ ১০ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

দাগনভূঞায় কৃষকের পাকা ধান কেটে ঘরে তুলে দিল যুবলীগ

দাগনভূঞা (ফেনী) প্রতিনিধি:

করোনা ভাইরাসের কারণে ধান কাটা শ্রমিক সংকট দেখা দিয়েছে। এ অবস্থায় দাগনভূঞা উপজেলায় অসহায় কৃষকদের পাশে দাঁড়িয়েছেন উপজেলা যুবলীগ। উপজেলা যুবলীগের নেতাকর্মীরা স্বেচ্ছাশ্রমে ধান কেটে কৃষকের ঘরে পৌঁছে দিচ্ছেন।
আজ শনিবার সকালে উপজেলার ইয়াকুবপুর ইউনিয়নের চন্ডিপুর ও মাতুভূঞা ইউনিয়নের উত্তর আলীপুর গ্রামের কৃষক ওবায়দুল হকের ৮০ শতক ও মজিবুল হকের ১২৫ শতক জমির ধান কেটে ও মাড়াই করে ঘরে পৌঁছে দেয়ার মাধ্যমে যুবলীগের এ মহতি উদ্যোগের শুভ সূচনা করেন ফেনী জেলা যুবলীগ সভাপতি ও দাগনভূঞা উপজেলা চেয়ারম্যান দিদারুল কবির রতন।
ফেনী জেলা যুবলীগ সভাপতি ও দাগনভূঞা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান দিদারুল কবির রতন জানান, আমন ধান ঘরে তুলতে কৃষকেরা শ্রমিক সংকটের কারনে যেন হতাশায় না পড়ে সে দিক বিবেচনা করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহ্বানে সাড়া দিয়ে এবং ফেনী ২ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আ’লীগের সাধারন সম্পাদক নিজাম উদ্দিন হাজারী এমপির নির্দেশনানুযায়ী অত্র উপজেলা যুবলীগকে কৃষকের ধান কেটে ঘরে পৌঁছে দেয়ার নির্দশনা প্রদান করা হয়। তারই প্রেক্ষিতে উপজেলা যুবলীগ সভাপতি আবুল ফোরকান বুলবুলের নেতৃত্বে উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় যুবলীগের কয়েকটি ইউনিট ধান কেটে ও মাড়াই করে কৃষকের ঘরে পৌঁছে দিচ্ছে। এতে কৃষক কোন পারিশ্রমিক দেয়া ছাড়া ঘরে ফসল তুলতে পারতেছে। যুবলীগের এ মহতি উদ্যোগ কৃষকদের অনুপ্রেরণা যোগাবে, কৃষকরা ভবিষ্যতে আরো বেশী করে ফসল ফলাবে। যতদিন কৃষকদের ধান ঘরে না উঠবে যুবলীগের নেতৃত্বে এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।
দাগনভূঞা উপজেলা যুবলীগ সভাপতি ও ইয়াকুবপুর ইউপি চেয়ারম্যান আবুল ফোরকান বুলবুল জানান, উপজেলায় এ বছর ধানের বাম্পার ফলন হলেও করোনা ভাইরাস পরিস্থিতিতে যানবাহন চলাচল না করায় ধান কাটা শ্রমিক সংকট দেখা দিয়েছে। এ অবস্থায় কৃষকের লোকসান কমানোর জন্য আমরা গরিব কৃষকের পাশে এসে দাঁড়িয়েছি । সংগঠনটির কর্মীরা উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের কৃষকদের ধান কেটে বাড়ি পর্যন্ত পৌঁছে দিচ্ছেন।
কৃষক ওবায়দুল জানান, জমিতে ধান পাকা ধরেছে কিন্তু শ্রমিক না পাওয়ায় আমরা চরম হতাশায় ভূগছিলাম কিভাবে ধান কেটে ঘরে ফসল তুলব। ঠিক সেই মূহুর্তে উপজেলা যুবলীগের নেতাকর্মীরা আমাদের পাশে এসে দাঁড়িয়েছে। কোনধরনের পারিশ্রমিক ছাড়া স্বেচ্ছাশ্রমে আমাদের জমির ধান কেটে ও মাড়াই করে ঘরে পৌঁছে দিচ্ছে। এতে আমরা কৃষকরা খুবই আনন্দিত এবং যুবলীগের প্রতি কৃতজ্ঞ।
এসময় উপস্থিত ছিলেন ফেনী জেলা যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রাজীব চৌধুরী, দাগনভূঞা উপজেলা যুবলীগ সভাপতি আবুল ফোরকান বুলবুল ও সাধারন সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মামুন প্রমুখ।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরো সংবাদ