আজ ৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৯শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

পুরান ঢাকার ১০টি মজার খাবার

ঐতিহ্যবাহী পুরান ঢাকা মানেই মোগল খানাদানা। কাচ্চি, বিরিয়ানি, শরবত, লাচ্ছি ইত্যাদি ইত্যাদি! পুরান ঢাকার অলি গলি পথে রয়েছে অসংখ্য রেস্তোরাঁ । কোনটার খানা কী রকম তা জেনে নিলে, এই সেই দোকানে আর বসতে হবে না। কী খেতে মন চাচ্ছে সেটা বুঝে এবার আগেই রেস্তোরাঁ নির্বাচন করে চলে যান। ঠকবেন না গ্যারেন্টি দিচ্ছি।

১। গ্র্যান্ড নবাব

কাচ্চি আমি পুরান ঢাকার প্রায় সব জায়গায় খেয়ে দেখেছি। ভাই বিশ্বাস করেন এর থেকে বেস্ট কাচ্চি আর কোথাও পাইনি। এর ধারে কাছেও কোন কাচ্চি নেই। এত মজা এত মজা এক কথায় অসাধারণ! কাচ্চি যদি খেতেই হয় আর সেটা যদি পুরান ঢাকায় তবে সবার আগে গ্র্যান্ড নবাবের কাচ্চি খেয়ে তারপর বাকিদের কাচ্চি খাবেন। কথা দিচ্ছি রিভিউ বিফলে যাবে না!
ঠিকানাঃ জেলখানা রোড, আনন্দ বেকারির পাশে।

২। বিসমিল্লাহ্‌ কাবাব ঘর

প্রথমেই বলবো এদের বিফ এবং চিকেন চাপ নিয়ে। আমি আজ পর্যন্ত যত জায়গায় চাপ খেয়েছি তার মাঝে বিসমিল্লাহ্‌ কাবারের চাপ সবথেকে মজা। পিসের সাইজ মাশ আল্লাহ্‌ ভালো, তেল চিটচিট করে না বরং ঠিকঠাক এবং স্বাদ অসাধারণ! এদের কাবাবও মজা। আর খাবারের সাথে দিবে তেঁতুল গোলায় মাখা পেঁয়াজ শসা। আহ! কি যে দারুণ!
ঠিকানাঃ নাজিরাবাজার মোড়

৩। বরিশাল মুসলিম হোটেল

কালাভুনা যদিও চাটগাইয়া খাবার কিন্তু পুরান ঢাকায় বরিশান মুসলিম হোটেল কালা ভুনার জন্য শ্রেষ্ঠ! অন্য জায়গার মত এদের কালাভুনা শুকনা খড়খড়ে না বরং বেশ রসালো। ধোঁয়া ওঠা ভাতের সাথে খেতে একে অমৃত লাগে।
ঠিকানাঃ নবাবপুর রোডের সিদ্দীকবাজার

৪। বিউটি লাচ্ছি

পুরান ঢাকার বিউটির নাম শোনে নাই এমন মানুষ খুব কমই আছে। বিউটি মানেই প্রাণ জুড়ানো লাচ্ছি আর লেবুর শরবত। সাধারণ একটা লেবুর শরবত যে এত মজা হতে পারে এখানে না এলে আমি কোনদিন জানতেই পারতাম না। পুরান ঢাকা গেলে বিউটির লাচ্ছি আর শরবত কেউ মিস করবেন না প্লিজ।
ঠিকানাঃ ৬০/১ কাজী আলাউদ্দিন রোড

৫। হোটেল আল রাজ্জাকের

গ্লাসি জিনিষটা আসলে কী আমি জানতাম না। ঢাকায় কয়েক জায়গায় খেয়েছি কিন্তু কোনটার স্বাদ কোনটার সাথে মিলেনি। কোলকাতা গিয়ে গ্লাসি খাওয়ার পর এর আসল স্বাদ পেয়েছি। এরপর পুরান ঢাকার আল রাজ্জাকে খেয়ে সেই স্বাদ আবার ফিরে পেলাম। মূলত গ্লাসি হলো প্রচুর ঘি আর জায়ফল,জয়ত্রি সহ আরো অনেক মশলা দিয়ে প্রস্তুত করা খাসির মাংসের দশাসই এক টুকরা। পোলাও কিংবা লুচির সাথে খেতে বেশ লাগে।
ঠিকানাঃ বংশালের নর্থ সাউথ রোড

৬। বিক্রমপুর হোটেল

আচারি বিফ মানে গরুর মাংসের উপর আচারের আলাদা একটা গন্ধ! কড়া একটা আচারের গন্ধ, সে যে কী চমৎকার! গন্ধেই পেটে ইঁদুর দৌড়ানো শুরু করে দেয়। গরম ভাতের সাথে এ হোটেলের আচারি বিফ হলে আর কিচ্ছু চাইনা খেতে।
ঠিকানাঃ পাটুয়াটুলি

৭। শাহী জুস কর্ণার

জিরাপানির জন্য এরা বেস্ট। অনেক জায়গায় জিরা পানি খেয়েছি ভাই কী যে অখাদ্য দেয় খেতে! কিন্তু এদের জিরা পানিটা একটা অমৃত! পরাণ জুড়ায় যায়।
ঠিকানাঃ লালবাগ শাহীমসজিদ এর সামনে

৮। বিউটি বোর্ডিং

বিউটি বোর্ডিং হচ্ছে ভর্তা-ভাজির জন্য অসাধারণ এক জায়গা। আর ইলিশ? তার স্বাদ আপনার মুখে লেগে থাকবে দাদা। আমার কাছে সর্ষে ইলিশের চাইতে ইলিশ তরকারী বেশি ভালো লেগেছে।

বিউটিফুল বিউটি বোর্ডিং
ঠিকানাঃ শ্রী দাস লেন, বাংলাবাজার ঢাকা

৯। রয়েল রেস্টুরেন্ট

বাদামের শরবত খেয়েছেন? আপনার মতে কোথায় পাওয়া যায় সবথেকে ভালো বাদামের শরবত? আমি ঢাকায় তন্নতন্ন করে খুঁজেও রিয়েলের মত মজাদার বাদামের শরবত পাইনি। পুরান ঢাকায় গেলে খেয়ে আসবেন অবশ্যই!

ঠিকানাঃ লালবাগ, ঢাকা

১০। আহমেদ রেস্টুরেন্ট

শুধু যে মোঘল খানার জন্য পুরান ঢাকা বিখ্যাত তা কিন্তু না, তাদেরও আছে ফাস্টফুডের দোকান। আর তাদের মাঝে এক নামে আহমেদ সবার চেনা। আহমেদের বার্গার নতুন ঢাকার অনেক নামীদামী রেস্টুরেন্টের থেকেও বেশি মজার! তাই পুরান ঢাকায় বার্গার খেতে হলে খেতে আসুন আহমেদ থেকে।
ঠিকানাঃ লক্ষ্মীবাজার

Leave a Reply

     এই বিভাগের আরো সংবাদ