আজ ২৭শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১১ই আগস্ট, ২০২০ ইং

ঈদের দিনে সিলেটে ভ্রাম্যমাণ মাংসের বাজার!

মোঃইবাদুর রহমান জাকির,সিলেট প্রতিনিধিঃ

ঈদের দিন বিকেল থেকে সিলেট নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে বসেছে কোরবানির মাংস বিক্রির ভ্রাম্যমাণ বাজার। বিক্রেতারা মূলত বিভিন্ন এলাকা থেকে আসা কসাই কিংবা ক্ষুদ্র আয়ের মানুষ। আর ক্রেতারা সাধারণত মধ্যবিত্ত পরিবারের যারা কোরবানি দিতে পারেন নি। এদিকে মহামারি করোনা ভাইরাসেরও প্রভাব পড়েছে এবারের কোরবানিতে। অনেকেই কোরবানি দিতে না পারায় বাজার থেকে মাংস কিনতে বাধ্য হচ্ছেন। এছাড়া ক্রেতাদের মধ্যে অনেক হোটেল ব্যবসায়ীরাও রয়েছেন।

নগরীর বন্দর বাজার থেকে তালতলা পয়েন্ট পর্যন্ত সবচেয়ে বড় অস্থায়ী মাংসের বাজারে পরিনত হয়েছে। সরেজমিনে সুবিদবাজার, দর্শনদেওরি, জেলরোড, জিন্দাবাজার, সুরমা পয়েন্ট, হাউজিং স্টেইট গলির ভেতর, জালালাবাদ আবাসিক এলাকার মুখ, আম্বরখানা মোড়, দরগামহল্লা, সুবিদবাজার এলাকায় ভ্রাম্যমাণ এসব মাংসের হাটে ক্রেতা-বিক্রেতার বেশ ভিড় দেখা গেছে। লক্ষ্যণীয় ছিল হাটের জমজমাট ক্রয়-বিক্রয়ও।

পাড়া-মহল্লা, বাজার, ফুটপাত জুড়ে যে যেখানে সুযোগ পেয়েছেন, সেখানেই বসে গেছেন মাংস নিয়ে। তবে পেশাদার কোনো মাংস ব্যবসায়ী এসব হাট বসাননি। মৌসুমি কসাই, দিনমজুর, দুস্থ্, ভিক্ষুক-গরিব, শিশু যারাই কিছু মাংস জোগাড় করতে পেরেছেন, তা নিয়েই বসে গেছেন বিক্রি করতে। যারা আজকের দিনে শ্রম বিক্রি করেছেন, কোরবানিদাতাদের কাছ থেকে মাংস পেয়েছেন ভিক্ষা কিংবা উপকৌঠন, তারাই এ মাংসের হাট বসিয়েছেন।

৫০০-৫৫০ টাকা প্রতি কেজি মাংস দুই-আড়াইশ টাকায় কিনতে পেরে ক্রেতারাও খুশি। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ক্রেতা বলেন, আমি কোরবানি দিতে পারিনি। এছাড়া যারা কোরবানি দেন তারা ঈদের দিন বাসা-বাড়িতে গিয়ে কাউকে কোরবানির মাংস দেন না। শুধু যারা বাসা-বাড়িতে গিয়ে হাত পেতে মাংস চায় কেবল তাদের কয়েক টুকরো মাংস দেয়া হয়। এমন পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে গিয়ে মাংস আনা সম্ভব না। তবে এখানে কম দামে মাংস ক্রয় করতে পেরে ভালো লাগছে।

বিক্রেতাদের একজন আলী আকবর জানান, সারাদিন ঘুরে ১০ কেজির মতো মাংস সংগ্রহ করেছেন তিনি। কিন্তু এসব মাংস রাখার জায়গা (ফ্রিজ) না থাকায় এবং কিছু টাকা লাভের আশায় সংগ্রহ করা মাংসের একটি অংশ তিনি বিক্রি করে দিয়েছেন।

এমন চিত্র দেখাযায় সিলেট জেলার ভিন্ন উপজেলায়,সারোজমিনে দেখাযায় আবার কোন কোন ভিক্ষুক ভিন্ন বাসা-বাড়িতে নিয়ে ক্রেতার নিকট বিক্রয় করতেছে।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরো সংবাদ