আজ ২৭শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১১ই আগস্ট, ২০২০ ইং

বিদায়ী ইউএনও’কে সংবর্ধনা ও নবাগত ইউএনও’ কে বরণ করলেন কর্ণফুলী উপজেলা পরিষদ।

কর্ণফুলী প্রতিনিধি ◼

একই পদের দুই কর্মকর্তা। একজন এলেন, অপরজন চলে গেলেন। এমন এক মুহুর্ত নিয়ে কর্ণফুলীর সদ্য বদলী হওয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো নোমান হোসেনের বিদায় সংবর্ধনা ও নবাগত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহিন সুলতানাকে বরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার বেলা ১২টার দিকে কর্ণফুলী উপজেলা পরিষদের উদ্যোগে রিভার ভিউ কমিউনিটি সেন্টার হলে এ বিদায় সংবর্ধনা ও বরণ অনুষ্ঠান করা হয়। উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফারুক চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা তানিয়া ইসলামের সঞ্চালনায় সংবর্ধিত অতিথি হিসেবে বিদায়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নোমান হোসেন বক্তব্য রাখতে গিয়ে দায়িত্ব পালনকালীন স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে বার বার আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন। এসময় তিনি বলেন- দায়িত্ব পালনকালীন সময়ে সরকারী বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, রাজনৈতিক মহল, জনপ্রতিনিধি, সাংবাদিক, সুধিজন, আলেম-উলামাসহ সর্বস্তরের মানুষের অকুন্ঠ ভালোবাসা আর সহযোগিতা পেয়েছি। যার কারণে আইনশৃঙ্খলা থেকে শুরু করে সার্বিক পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে। এই অঞ্চলের মানুষ অত্যন্ত সহজ-সরল প্রকৃতির এবং প্রশাসনের কাজে তারা সহযোগিতা করতে সদা প্রস্তুত। সরকারী চাকুরী করলে ষ্টেশন বদল হবে, এটাই স্বাভাবিক নিয়ম। দায়িত্ব পালনকালে জনগণের কল্যাণে কাজ করলে, ভালো কাজের স্বীকৃতি সরূপ জনগণ তাকে কখনও ভুলে না। এতে সরকারও ভাল কাজের মুল্যায়ন করে এবং তাদের পদোন্নতিও হয় ভালো। যোগদানকারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে এ উপজেলার মানুষের পাশে থেকে জনকল্যাণকর কাজ করার জন্য তিনি আহবান জানান।

সভাপতির বক্তব্যে উপজেলা চেয়ারম্যান ফারুক চৌধুরী বলেন- বিদায়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) তাঁর সততা, কর্মদক্ষতা ও নানাবিদ গুণে অল্পদিনে যে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন, যা কর্ণফুলীবাসীর নিকট চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবে। তাঁর বিদায় বেলা সরকারী বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ, জনপ্রতিনিধিসহ উপজেলাবাসী বিদায়ী ইউএনও’র কর্মের যথার্থ মূল্যায়ন করে যে ভালোবাসার বন্ধনে আবদ্ধ করে সম্মানিত করেছেন, তা সত্যিই আনন্দের। সর্বস্তরের মানুষের ভালোবাসার মেলবন্ধন অটুট রাখতে হলে সবাইকে উন্মুক্ত মনে জনগনের কল্যাণ ও সার্বিক উন্নয়নে বিদায়ী ইউএনও’র মতো নিবেদিতভাবে কাজ করতে হবে। নবাগত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাও ভালো কাজের মাধ্যমে জনগণের পাশে থাকবেন এবং এই উপজেলার উন্নয়নে কাজ করে অবশ্যই যোগ্যতার স্বাক্ষর রাখবেন বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান দিদারুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) সুকান্ত সাহা, উপজেলা প্রকৌশলী জয়শ্রী দে, উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আব্দুস শুক্কুর। উপস্থিত ছিলেন উপজেলার ৫ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, মুক্তিযোদ্ধা এন ইসলাম, সিও দিপু চাকমা, ইমতিয়াজ প্রমূখ।

উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান দিদারুল ইসলাম বলেন, ইউএনও নোমান হোসেন একজন দক্ষ কর্মী, তিনি কাজের প্রতি খুবই আন্তরিক। তিনি শুধু জনপ্রতিনিধি নয়, সকল শ্রেণি পেশার মানুষের সঙ্গে আন্তরিকভাবে সুন্দর আচরণ করেছেন যে কেউ তার এই উদারতায় তাকে শুধু শ্রদ্ধা করতেন। আশাকরি নতুন কর্মস্থলে গিয়েও মানুষকে যেকোনো প্রয়োজনে সহযোগিতা করবেন ইউএনও।

নির্বাহী কর্মকর্তা নোমান হোসেন আরো বলেন বলেন, মানুষ খুবই আন্তরিক, আর এখানকার রাজনৈতিক পরিবেশ আরও ভাল। ফলে সকলকে নিয়ে সুন্দর একটি টিমওয়ার্ক করে কাজ করেছি। কতটুকু পেরেছি বলতে পারব না, তবে চেষ্টা করেছি। দায়িত্ব পালনকালে সবাই যেভাবে সহযোগিতা করেছেন সে কারণে তিনি সকলের প্রতি কৃতজ্ঞ বলে উল্লেখ করেন।

নবাগত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিন সুলতানা বলেন- কর্ণফুলীর উন্নয়নকে আরো গতিশীল ও সমৃদ্ধ করে এই জনপদকে একটি মাদকমুক্ত শান্তির জনপদে পরিণত করতে চাই। এজন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করছি।

অনুষ্ঠানে বিদায়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নোমান হোসেনকে সম্মাননা স্মারক ক্রেস্ট ও শুভেচ্ছা উপহার প্রদান ও নবাগত উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা শাহিন সুলতানাকে ফুলের তোড়া দিয়ে বরণ করা হয়।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরো সংবাদ